Nagad account open – নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম

আজকের আলোচনার প্রধান বিষয় হলো কিভাবে nagad account open করতে হবে। নগদ হলো বাংলাদেশের ডাক বিভাগের একটি ডিজিটাল মোবাইল ব্যাংকিং লেনদেন সেবা। যেটি ২০০৯ সালের ২৯ মার্চ থেকে তাদের সেবার কার্যক্রম শুরু করে। প্রতিষ্ঠানটি ৫-৬ বছরের ভিতরে মোবাইল ব্যাংকিং সেবায় অনন্য সৃষ্টি করে ফেলেছে।

নগদের সেবার মান উন্নত এবং সাশ্রয়ী মূল্যের কারণে অনেক ব্যাংকিং সেবা কে তারা ইতিমধ্যে পিছনে ফেলে দিয়েছে। এমনকি ব্যাংকিং জগতে একছত্র আধিপত্য করা বিকাশের মতো এতো বড় কোম্পানিকেও চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিচ্ছে।

নগদের সব থেকে বড় আকর্ষণ হলো তাদের ক্যাশ আউট চার্জ অন্য সকল মোবাইল ব্যাংকিং সেবা থেকে অনেক কম।এছাড়াও আপনি বিনা খরচে ফ্রান্ড ট্রান্সফার, বিল পরিশোধ, মোবাইল রিচার্জ সহ বিভিন্ন ধরনের কাজ করতে পারবেন।

নগদ একাউন্ট এখন খুব সহজেই ঘরে বসে খোলা যায়। এছাড়াও আপনি উদ্যোক্তা পয়েন্ট থেকেও নগদ একাউন্ট খুলতে পারবেন। তো চলুন আজকের আয়োজনে জেনে নেই নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম বা how to nagad account open.

Nagad account open

নগদ একাউন্টের কিছু সু্বিধা

নগদ হলো বাংলাদেশের অন্যতম সেরা বিশ্বস্ত মোবাইল ব্যাংকিং সেবা। এখানে আপনি একদম নিরাপদে যে কোনো ধরনের লেনদেন সম্পূর্ণ করতে পারবেন।

  • হাজার প্রতি সর্বনিম্ন ক্যাশ আউট চার্জ মাত্র ৯ টাকা ৯৯ পয়সা।
  • মোবাইল রিচার্জ অফার এবং পেমেন্ট অফার।
  • আপনি একদম ফ্রিতে সেন্ড মানি করতে পারবেন।
  • নতুন নগদ একাউন্টে ২০ টাকা রিচার্জ করলে ২০ টাকা ক্যাশব্যাক।
  • নগদে আপনি বিদ্যুৎ বিল থেকে শুরু করে গ্যাস বিল,পানি বিল ইত্যাদি একদম ফ্রিতে দিতে পারবেন।
  • এছাড়াও  QR কোড ব্যবহার করে পেমেন্ট সুবিধাতো থাকছেই।

নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম – Nagad account open 2023

নগদ একাউন্ট খোলা একদম সোজ।আপনি ঘরে বসেই নগদ একাউন্ট খুলতে পারবেন। নগদ একাউন্ট মূলত দুই ভাবে খোলা যায়। একটি হলো nagad account open code কোড *১৬৭# এর মাধ্যমে আরেকটি হলো অ্যাপ এর মাধ্যমে।

কোড এর মাধ্যমে খোলার জন্য ডায়ালে গিয়ে *১৬৭# লিখে খুব সহজেই করতে পারবেন। ডায়াল করে প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে একাউন্ট খুলতে পারবেন।

নগদ অ্যাপ এর মাধ্যমে একাউন্ট খুলতে Play Store এ গিয়ে নগদ অ্যাপ ইনস্টল করুন।  এরপর অ্যাপ এ ডুকে রেজিস্ট্রার লিংকে ক্লিক করে মোবাইল নাম্বার ও অপারেটর সিলেক্ট করে NID এর সামনের ও পিছনের ছবি স্ক্যান করে নিবেন। এরপর সকল তথ্য যাচাই-বাছাই করে পিন সেট করে একাউন্ট খুলে নিবেন। নিচে আমি স্কিন সর্ট সহকারে দেখিয়ে দিলাম কিভাবে নগদ একাউন্ট খুলতে হয়;

অ্যাপ দিয়ে নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম

নগদ অ্যাপের মাধ্যমে ৫ মিনিটের মধ্যে খুব সহজেই কারো সাহায্য ছাড়া একাউন্ট খুলতে পারবেন। নিচে আমি ধাপে ধাপে দেখিয়ে দিলাম;

ধাপ ১ঃ অ্যাপ ইনস্টল করা

অ্যাপ দিয়ে একাউন্ট খুলতে আপনাকে প্রথমে Google Play Store থেকে  নগদ অ্যাপটি ডাউনলোড করে নিতে হবে। অ্যাপটি ডাউনলোড করা হয়ে গেলে ইন্সটল করে নিবেন।

Picture-1

ধাপ ২ঃ নগদ অ্যাপ রেজিষ্ট্রেশন 

Google Play Store থেকে অ্যাপটি ডাউনলোড করা হয়ে গেলে ইনস্টল  করে এখন রেজিষ্ট্রেশন করতে হবে। নগদ অ্যাপে যখন ডুকবেন তখন নিচের একটি ইন্টারফেস চলে আসবে। সেখান থেকে আপনি লগইন এবং নতুন একাউন্ট খুলুুন এই দুটো অপশন পেয়ে যাবেন। আমরা যেহেতু নতুন একাউন্ট খুলতে যাচ্ছি তাই নতুন একাউন্ট খুলুন এখানে ক্লিক করতে হবে।

নতুন একাউন্টে খুলুন এ ক্লিক করার পর আপনার সামনে একটি ঘোষণাপত্র আসবে। আপনি এগুলো পড়ে দেখতে পারেন। আমি যেহেতু আগেই পড়েছি তাই বাম সাইটে টিক দিয়ে সম্মত অপশনে ক্লিক করলাম।

ধাপ ৩ঃ মোবাইল নাম্বার ও নগদ পয়েন্ট

পরবর্তী ধাপে আপনার মোবাইল নাম্বার দিতে হবে। এছাড়াও নিচে লোকেশন অপশন আছে সেখানে ক্লিক করে আপনি আপনার নিকটস্থ নগদ উদ্দোক্তার কাছে ফোন,ছবি ও এনআইডি দিয়েও একাউন্ট খুলতে পারবেন।

ধাপ ৪ঃ অপারেটর সিলেক্ট

এই ধাপে আপনি কোন কোম্পানির সিম চালান সেটা সিলেক্ট করতে হবে। আমি যেহেতু এয়ারটেল সিম চালাই তাই এয়ারটেল সিলেক্ট করে পরবর্তী ধাপে ক্লিক করলাম।

Picture-3

ধাপ ৫ঃ একাউন্ট টাইপ

এই ধাপে এসে একাউন্ট টাইপ সিলেক্ট করতে হবে। এখানে দুটো অপশন থাকবে,

  • রেগুলকার
  • ইসলামিক

আপনি যে টাইপের একাউন্ট খুলতে চান সেটা সিলেক্ট করবেন। আমি রেগুলার অপশন খুলবো তাই এটা সিলেক্ট করে পরবর্তী ধাপে ক্লিক করলাম।

ধাপ ৬ঃ জাতীয় পরিচয়পত্র দেওয়া

মোবাইল ব্যাংকিং সেবাগুলো টাকার সাথে সম্পর্কিত তাই এখানে কঠোর নিরাপত্তা মানতে হয়। ব্যবহারকারীদের নিজস্ব পরিচয় নিশ্চিত করতে এমন ব্যবস্থা। শুধুমাত্র জাতীয় পরিচয়পত্র দিয়েই ব্যক্তি তথ্য নিশ্চিত করা সম্ভব।

এখন প্রথম ক্যামেরায় জাতীয় পরিচয়পত্রের সামনের দিকটা প্রথম স্ক্যান করুন। এর পর এনআইডির পিছনের অংশ স্ক্যান করে নিন। এরপর পরবর্তী ধাপে প্রবেশ করুন।

ধাপ ৭ঃ স্ক্যান করা তথ্য যাচাই

আপনার আপলোড করা জাতীয় পরিচয়পত্রের ছবির মাধ্যমে নগদ স্বয়ংক্রিয়ভাবে আপনার পরিচয় যাচাই করে নিবে। প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন হলে নগদ আপনার জাতীয় পরিচয়পত্র থেকে প্রাপ্ত্য সকল তথ্য উপস্থাপন করবে। এই সকল তথ্যের মধ্যে থাকবে জাতীয় পরিচয়পত্রে দেওয়া নাম,ঠিকানা,মা-বাবা/স্বামী ইত্যাদি তথ্য। স্ক্যানটির সকল তথ্য ভালো করে দেখে নিন। তথ্যে কোনো ভুল থাকলে তা সম্পাদন করে নিবেন।

ধাপ ৮ঃ অন্যান্য তথ্য

এই ধাপে আপনাকে প্রয়োজনীয় কিছু তথ্য যোগ করতে হবে। যেমন।

  • লিঙ্গঃ পুরুষ/ মহিলা
  • লেনদেনের উদ্দেশ্যঃ ব্যক্তিগত
  • পেশাঃ ব্যবসা অথবা আপনি যেই পেশায় আছেন সেটা সিলেক্ট করবেন।
  • আপনি কি টাকার উপরে মুনাফা নিতে চানঃ হ্যা অথবা না সিলেক্ট করুন।

আপনার সব তথ্য সঠিকভাবে দেওয়া হলে পরবর্তী ধাপে চলে যাবেন।

ধাপ ৯ঃ ছবি আপলোড

এই ধাপে আপনার ছবি নগদ অ্যাপের মাধ্যমে আপলোড করতে হবে। তবে ছবি তোলার আগে নিচের কিছু নিয়ম খেয়াল রাখতে হবে;

  • ছবি তোলার সময় চোখ থেকে চশমা (যদি থাকে) খুলে ফেলতে হবে।
  • ফ্রেমের মধ্যে আপনার সম্পূর্ণ মুখমণ্ডল রাখুন।
  • ছবি তোলার সময় চারপাশে পর্যাপ্ত আলো থাকতে হবে, যাতে ছবি ক্লিয়ার উঠে।
  • ছবি তোলার সময় আপনার ক্যামেরা বা চেহারা স্থির রাখুন, যাতে ছবি সোজা হয়।
  • ছবি তুলতে কয়েকবার চোখের পলক ফেলুন।

চোখের পলক ফেলার সাথে সাথেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে ছবি তোলা হয়ে যাবে। তবে ছবি যদি আপনার পছন্দ না হয় তাহলে আরেকবার ট্রাই করতে পারবেন।

Picture-8

ধাপ ১০ঃ অন্যান্য ডকুমেন্ট (অপশনাল)

এই ধাপে আপনাকে এসএমই একাউন্ট এর জন্য প্রয়োজনীয় ট্রেড লাইসেন্সের ( বা অন্য ডকুমেন্ট) ছবি তুলে আপলোড করতে হবে। তবে এটা আপনি না দিলেও সমস্যা হবে না, এটা সম্পূর্ণ অপশনাল। যদি অন্যান্য ডকুমেন্ট না দেন তাহলে স্কিপ করে পরবর্তী ধাপে চলে যান।

ধাপ ১১ঃ স্বাক্ষর এবং শর্তাবলি

এই ধাপে আপনাকে নগদের দেওয়া শর্তাবলি মানতে হবে। আমি নগদ এর সাথে একমত এই স্থানে একটি টিক দিয়ে দিবেন। এরপর নিচে আপনার একটি স্বাক্ষর দিয়ে পরবর্তী ধাপে চলে যাবেন।

ধাপ ১২ঃ আপলোড স্ট্যাটাস

এই ধাপে আপনার দেওয়া সকল স্ট্যাটাস দেখতে পারবেন। আপনার ভোটার আইডি কার্ড, ছবি, স্বাক্ষর ঠিক থাকলে সফল দেখাবে। সব কিছু ঠিক থাকলে পরবর্তী ধাপে চলে যেতে হবে।

ধাপ ১৩ঃ সকল তথ্য যাচাই

এই ধাপে পূনরায় আপনার সকল তথ্য দেখানো হবে। আপনার নাম,ঠিকানা,মোবাইল নাম্বার, স্বাক্ষর ইত্যাদি সব। সব কিছু ভালো করে চেক করে নিবেন। সব কিছু যদি ঠিক থাকে তাহলে পরবর্তী ধাপে চলে যাবেন।

পরবর্তী ধাপে টিপ দেওয়ার সাথে সাথে নগদ একাউন্ট খোলার সিংহভাগ ধাপ শেষ হয়ে যাবে।

ধাপ ১৪ঃ মোবাইল নাম্বার যাচাই

যেহেতু এটা মোবাইল ব্যাংকিং তাই আপনার মোবাইল নাম্বার যাচাই করা খুবই জরুরী। আপনি যেই নাম্বার দিয়ে খুলেছেন সেটা ঠিক আছে কিনা এটা যাচাই করার জন্য আপনার নাম্বারে একটি ওটিপি পাঠাবে। ওটিপি পাওয়ার পর সঠিকভাবে খালি বক্সে দিয়ে দিবেন।

ধাপ ১৫ঃ পিন সেট করা

আপনার একাউন্টের সাথে মোবাইল নাম্বার যুক্ত হওয়ার পর এখন পিন সেট করতে হবে।

  • প্রথম ৪টি সংখ্যা বা প্রথম ৪টি জোর বিজোড়/বিজোড় সংখ্যা পিন হিসেবে দেওয়া যাবে না।
  • পিন অবশ্যই নিজের গোপন নাম্বারের হতে হবে।
  • আপনি ব্যতিত কাউকে এই পিন নাম্বার জানাবেন না।

নিচের মতো করে পিন সেট করুন

ধাপ ১৬ঃ নগদ অ্যাপকে ফোন অ্যাপের সাথে যুক্ত করুন

নগদ যে কোনো মোবাইল ব্যাংকিং এর ক্ষেত্রে এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারন মোবাইল ব্যাংকিং অ্যাপ ব্যবহার করতে হলেই মোবাইলের নাম্বার ইনপুট করতে হবে। অর্থ্যাৎ, আপনার ফোন/কন্ট্যাক্ট এর সাথে নগদ অ্যাপ সংযুক্ত থাকবে। ফলে আলাদা করে নাম্বার লেখার ঝামেলা থাকে না। ফোনের সেভ নাম্বার থেকেই লেনদেন করা যায়।

নিচের ALLOW বাটনে ক্লিক করার পরই আপনার নগদ একাউন্ট খোলার ধাপ শেষ হয়ে যাবে। এরপর আপনাকে সোজা মেনুতে নিয়ে যাবে। আপনি এখন থেকে নগদ অ্যাপ এর সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

Picture-15

আপনার জন্য প্রয়োজনীয় কিছু পোস্টঃ

পরিশেষে

আজকের আয়োজনে আমরা দেখানোর চেষ্টা করলাম যে নগদ একাউন্ট কিভাবে খুলতে হয় ? How to nagad account open 2023 এর সম্পর্কে বিস্তারিত বলার চেষ্টা করেছি। আশা করা যায় এই আর্টিকেলের সহায়তায় খুব সহজেই নগদ একাউন্ট খুলতে পারবেন। 

এছাড়াও আপনার নগদ একাউন্ট সম্পর্কে যদি কোনো প্রশ্নো থাকে তাহলে নিচের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে জানাতে পারেন।

FAQ- প্রশ্নোত্তর

নগদ কত সালে তাদের সেবার কার্যক্রম শুরু করে?

উত্তরঃ ২০০৯ সাল।

নগদের ক্যাশ আউট চার্জ কত?

উত্তরঃ ৯ টাকা ৯৯ পয়সা।

নগদে কয়টি উপায় একাউন্ট খোলা যায়? 

উত্তরঃ ২টি।

বাটন মোবাইলে নগদের একাউন্ট খোলার নিয়ম?

উত্তরঃ *১৬৭#

Leave a Reply

error: Alert: Content selection is disabled!!